• 01 Mar, 2024

সুপ্রিমকোর্টে ভাঙচুর: বিএনপি’র ১৮ আইনজীবীর বিরুদ্ধে মামলা

সুপ্রিমকোর্টে ভাঙচুর: বিএনপি’র ১৮ আইনজীবীর বিরুদ্ধে মামলা

সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি মোমতাজ উদ্দিন ফকির ও সম্পাদক এডভোকেট আব্দুন নূর দুলালের কক্ষ ভাঙচুরের ঘটনায় জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের ১৮ আইনজীবীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সহকারী সুপারিনটেনডেন্ট মো. রফিক উল্লাহ বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় এ মামলা দায়ের করেন।

মামলায় যাদের আসামি করা হয়:

আইনজীবী মো. কায়সার কামাল, এএম মাহবুব উদ্দিন খোকন, রুহুল কুদ্দস কাজল, গাজী কামরুল ইসলাম সজল, কাজী মোস্তাফিজুর রহমান আহাদ, নূরে আলম সিদ্দিকী সোহাগ, মো. কাইয়ুম, মো. সাগর হোসেন, মো. রেজাউল করিম রেজা, মো. উজ্জ্বল হোসেন, মাহবুবুর রহমান খান, মো. রবিউল আলম সৈকত, নজরুল ইসলাম ছোটন, রেদোয়ান আহমেদ রানজিব, মো. মাহমুদ হাসান, মো. কামাল হোসেন, মো. আনিসুর রহমান (রায়হান), খালেদ মাহমুদুর রহমান আদনান।

আসামিরা বিএনপি-জামায়াতের আইনজীবী নামধারী সন্ত্রাসী বাহিনীর ক্যাডার। বৃহস্পতিবার বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সুপ্রিম কোর্ট শাখার সদস্যগণ বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি ও সম্পাদক মহোদয়ের কক্ষের সামনে শান্তিপূর্ণভাবে শান্তি সমাবেশ করে। দুপুর ২টায় বর্ণিত আসামিরা সংঘবদ্ধভাবে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্যগণের ওপর ১, ২, ৩ ও ৪নং আসামির নেতৃত্বে ও প্রত্যক্ষ উপস্থিতিতে লাঠিসোটা নিয়ে অতর্কিত হামলা করে। ৫নং আসামি এড. কাজী মোস্তাফিজুর রহমান আহাদ তার হাতে থাকা লাঠি নিয়ে বিজ্ঞ আইনজীবী গোলাম সারোয়ার আমিনকে হত্যার উদ্দেশ্যে উপর্যুপরি আঘাত করে তার বাম হাতের হাড় ভেঙে ফেলে।

৬নং আসামি এড. নূরে আলম সিদ্দিকী সোহাগ, ৭নং আসামি এড. মো. কাইয়ূম এবং ১০নং আসামি এড. মো. উজ্জ্বল হোসেন চেয়ার দিয়ে সভাপতি ও সম্পাদকের কক্ষের জানালা ব্যাপক ভাঙচুর করে। এবং ৮, ৯ ও ১০নং আসামিরা সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল সাফায়াত জামিলের ওপর উপর্যুপরি আঘাত করে আহত করে ও শরীরের জামা-কাপড় ছিঁড়ে ফেলে। এরপর সকল আসামি একত্রিত হয়ে অত্র সমিতির সভাপতি ও সম্পাদক মহোদয়ের কক্ষদয় উপস্থিত সাংবাদিকদের সম্মুখে ব্যাপক ভাঙচুর করে বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির মূল্যবান সম্পদ বিনষ্ট করে।

বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্যগণের ওপর ৫নং আসামি ফায়ার এক্সটিংগুইশার দিয়ে গ্যাস হামলা করে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতিতে চরম নৈরাজ্য সৃষ্টি করে। আসামিরা সভাপতি ও সম্পাদক কক্ষের জানালার গ্লাস, চেয়ার, টেবিল সহ অন্যান্য মালামাল ভাঙচুর করে। এতে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতিসাধন করে এবং বিজ্ঞ আইনজীবীগণের মূল্যবান মোবাইল, ঘড়ি ও মানিব্যাগ, যাহার মূল্য অনুমান ২০ হাজার টাকা চুরি করে নিয়ে যায় এবং ভয়ভীতি প্রদান করে। আহত বিজ্ঞ আইনজীবী গোলাম সারোয়ার আমিনকে দ্রুত এম্বুলেন্সযোগে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেয়া হয়েছে।

এদিকে, বিএনপি সমর্থক আইনজীবীরাও তাদেরকে হামলা ও মারধর করার অভিযোগ এনে শাহবাগ থানায় এজাহার দায়ের করেন।

তবে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত নারী আইনজীবী জেসমিন জাহান করিমের দায়ের করা এজাহারটি মামলা হিসেবে গ্রহণ করেনি পুলিশ। এজাহারে আওয়ামী সমর্থক ২২ আইনজীবীর নাম উল্লেখ করা হয়েছে। এরা হলেন- বারের সভাপতি আইনজীবী মোমতাজ উদ্দিন ফকির, সম্পাদক আব্দুন নূর দুলাল, সিনিয়র সহ-সভাপতি জেসমিন সুলতানা ও এডভোকেট মোহাম্মাদ জগলুল কবির।