সুনামগঞ্জে সাংবাদিকদের সঙ্গে অসদাচরণ, ৪ পুলিশ সদস্য প্রত্যাহার

15

সুনামগঞ্জে আদালত প্রাঙ্গণে সংবাদ সংগ্রহ করার সময় সাংবাদিক ও আইনজীবীদের সঙ্গে পুলিশের অসদাচরণের জন্য এক সহকারী উপপরিদর্শকসহ (এএসআই) পুলিশের ৪ সদস্যকে আদালতের দায়িত্ব থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) ৪ পুলিশ সদস্যকে আদালতের দায়িত্ব থেকে প্রত্যাহার করা হয়।

এ ঘটনায় পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্তে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু সাঈদকে প্রধান করে ২ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে জেলা পুলিশ। প্রত্যাহার করা ৪ পুলিশ সদস্য হলেন এএসআই লুৎফুর রহমান, কন্সটেবল মুস্তাক, পিন্টু ও রহমান।

প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করে তদন্ত কমিটির প্রধান ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু সাঈদ বলেন, বিজ্ঞ আদালতে সাংবাদিক ও পুলিশের মধ্যে যে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটেছে সেটার তদন্ত চলছে। তদন্তের স্বার্থে তাদেরকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দিয়ে আদালত থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। তদন্ত শেষে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, গতকাল সোমবার (৮ আগস্ট) আদালত প্রাঙ্গণে সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে মোবাইলে চিত্র ধারণ করার সময় যমুনা টিভির সুনামগঞ্জ প্রতিনিধির মোবাইল ছিনিয়ে নেন এক পুলিশ সদস্য। পরে চ্যানেল ২৪ এর জেলা প্রতিনিধি এআর জুয়েল মোবাইল ফোনটি ফিরিয়ে আনতে গেলে তারা ওই সাংবাদিকের সঙ্গেও অসৌজন্যমূলক আচরণ করে কোর্টের দায়িত্বে থাকা পুলিশ সদস্যরা।

এসব দেখে আদালত প্রাঙ্গণে থাকা আইনজীবীরা এগিয়ে আসলে ক্ষিপ্ত হয়ে তাদের সঙ্গেও খারাপ আচরণ করে পুলিশ সদস্যরা। পরে আদালত প্রাঙ্গণে পুলিশ ও আইনজীবীদের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হলে পুলিশ সুপার ঘটনাস্থলে এসে দোষীদের শাস্তির আশ্বাস দিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন।

ঘটনার পরপরই আইনজীবী সমিতি ও সুনামগঞ্জ প্রেস ক্লাব তাৎক্ষণিক বৈঠক করে ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে দোষী পুলিশ সদস্যদের উপযুক্ত শাস্তির দাবি জানিয়ে আদালত প্রাঙ্গণে সহনশীল পুলিশকে দায়িত্ব দেওয়ার আহ্বান জানান।