ঘাতকরা শুধু কামালকে নয়, হত্যা করেছে দেশের সম্ভাবনাকে: পরশ

1

তকরা শুধু শেখ কামালকে নয়, বাংলাদেশের সম্ভাবনাকে হত্যা করেছে বলে মন্তব্য করেছেন যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ।

শুক্রবার (৫ আগস্ট) জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জ্যেষ্ঠ পুত্র বিশিষ্ট ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সংগঠক বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ কামালের ৭৩তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন, বাংলাদেশ (আইইবি) অডিটোরিয়ামে এ সভার আয়োজন করে যুবলীগ।

শেখ পরশ বলেন, আমার দৃষ্টিতে শেখ কামাল একটি বিস্ময়ের নাম। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ও বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের বড় ছেলে শেখ কামাল ছিলেন একজন বন্ধুসুলভ ক্যারিসমেটিক মানুষ। তিনি ছিলেন একাধারে তুখোড় ক্রীড়া ও সংস্কৃতি সংগঠক এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা। মুক্তিযুদ্ধের দিনগুলোতে ফিরে গেলে আমরা শেখ কামালের মধ্যে এক দেশপ্রেমী যোদ্ধাকে দেখতে পাই। প্রতিটি আন্দোলন-সংগ্রামে তিনি বীরত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন। শেখ কামাল ছিলেন সংস্কৃতি জগতে এক উজ্জ্বল নক্ষত্র।

তিনি বলেন, শেখ কামাল খেলাধুলার ক্ষেত্রে বৈপ্লবিক পরিবর্তন এনেছিলেন। খেলোয়াড়দের স্বাবলম্বী করার উদ্যোগ গ্রহণের পাশাপাশি তিনি তাদের জন্য অবসরভাতা প্রদানেরও উদ্যোগ গ্রহণ করেন। খেলোয়াড়দের নিরাপত্তার জন্য তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নিকট হতে ১০ লাখ টাকার অনুদান নিয়ে ‘খেলোয়াড় কল্যাণ তহবিল’ গঠন করেন। তিনি একজন প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটারও ছিলেন এবং চমৎকার ফাস্ট বোলিং করতেন।

তিনি আরও বলেন, আগস্টের ঐ ঘৃণ্যতম হত্যাকাণ্ড শুধু বঙ্গবন্ধুর হত্যাকাণ্ড না, এটা আমাদের সম্ভাবনার হত্যাকাণ্ড। এই হত্যাকাণ্ড আমাদের সামাজিক, নৈতিক এবং মনস্তাত্ত্বিক লেভেলে অপূরণীয় ক্ষতি সাধণ করেছে।

যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. মাইনুল হোসেন খান নিখিলের সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান বলেন, শেখ কামাল ছিলেন একজন ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সংগঠক এবং অত্যন্ত পরোপকারী মানুষ। ঘাতকরা ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করার পর বঙ্গবন্ধু এবং তার পরিবার সম্পর্কে যে অপপ্রচার শুরু করে, যেভাবে ইতিহাসটাকে তারা বিকৃত করার চেষ্টা করেছিল, প্রধানমন্ত্রী যদি সাহস করে দেশে ফিরে না আসতেন, আওয়ামী লীগের দায়িত্ব যদি কাঁধে তুলে না নিতেন এবং যদি তিনি দেশের প্রধানমন্ত্রী না হতে পারতেন, তাহলে আজকে আমরা বঙ্গবন্ধু এবং শেখ কামাল সম্পর্কে যে কথাগুলো বলছি নতুন প্রজন্ম সেই সত্যটাকে কোনদিন জানতো না। আপনাদের কাছে আমার অনুরোধ, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা এবং ক্রীড়া জগতে শেখ কামালের স্বপ্নকে এগিয়ে নিয়ে যেতে যুবলীগকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে।

সম্মানিত অতিথির বক্তব্যে ৭১ টিভি’র প্রধান সম্পাদক ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোজাম্মেল বাবু বলেন, আজ শেখ কামালের জন্মদিন। আজকের দিনে আমরা আনন্দ করতে পারছি না, আবার কাঁদতেও চাই না। আজকের দিনটি তাহলে কি? আজকের দিনটি চেতনার নবায়নের এবং নিজের কাছে নিজেকে বলা আমরা যেন শেখ কামালের আদর্শের একজন উত্তরাধিকার হিসেবে নিজেকে তৈরি করতে পারি। আমাদেরকে শেখ কামালের আদর্শে একজন পূর্ণাঙ্গ মানুষ হতে হবে। তিনি যে হাতে সেতার বাজিয়েছেন আবার মুক্তিযুদ্ধের একজন সম্মুখযোদ্ধা হিসেবে সে হাতে অস্ত্র তুলে নিয়েছেন।

`আজ যদি বাস্তবে আসি, যে শত্রু আমাদের ৭১ সালে মোকাবিলা করতে হয়েছে আজও সেই প্রচ্ছন্ন শত্রুকে আমাদের মোকাবিলা করতে হবে। সরকারবিরোধীরা বাংলাদেশকে ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করতে চায়, আমাদেরকে সতর্ক থাকতে হবে, রাজপথ দখলে রাখতে হবে। বিশ্ব পরিস্থিতিকে কাজে লাগিয়ে, দ্রব্যমূল্যের বিশ্ব চাপিয়ে দেওয়া সমস্যাকে কাজে লাগিয়ে সাধারণ মানুষকে উত্তেজিত করে কোনো ষড়যন্ত্রকারী যেন রাজপথে নামতে না পারে, বৈশ্বিক জ্বালানি সংকট তৈরি করে রাজপথ যেন কেউ দখলে নিতে না পারে, এটা হবে আমাদের প্রধান কাজ।’

এর আগে সকাল ৮টা ১৫ মিনিটে ধানমণ্ডিস্থ আবাহনী ক্লাব প্রাঙ্গণে শহীদ শেখ কামালের প্রতিকৃতিতে এবং ৯টা ১৫ মিনিটে বনানী কবরস্থানে তার সমাধিতে যুবলীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।