নড়াইলে শিক্ষককে জুতার মালা: রিট করার পরামর্শ হাইকোর্টের

36

ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে নড়াইলের কলেজ শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে লাঞ্ছনার ঘটনায় রিট আবেদন দায়ের করার পরামর্শ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি খিজির হায়াত হাইকোর্ট বেঞ্চ মঙ্গলবার শিক্ষককে লাঞ্ছনার বিষয়ে গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এই পরামর্শ দেন।

এদিন বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন হাইকোর্টের নজরে আনেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী পুর্ণিমা জাহান।

তখন হাইকোর্ট বলেন, আপনারা রিট আবেদন নিয়ে আসুন। আমরা শুনব।

পরে পুর্ণিমা জাহান সাংবাদিকদের বলেন, রিট দায়ের করার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সংগ্রহ করা হচ্ছে। আগামী বৃহস্পতিবার রিট দায়ের করা হতে পারে।

গত ১৮ জুন নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রী কলেজের কলেজের অধ্যক্ষ স্বপন বিশ্বাসকে গলায় জুতার মালা পরিয়ে লাঞ্ছনার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ব্যক্তিদের ভাষ্য, নড়াইল সদরের মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ওই ছাত্র ফেসবুকে পোস্ট দেওয়ার পরদিন কলেজে গেলে কিছু মুসলমান ছাত্র তাকে ওই পোস্ট মুছে ফেলতে বলেন। ওই সময় অধ্যক্ষ ওই ছাত্রের ‘পক্ষ নিয়েছেন’ এমন রটনা ছড়িয়ে পড়লে সেখানে উত্তেজনা তৈরি হয়। এ সময় উত্তেজিত ছাত্ররা অধ্যক্ষ ও দুজন শিক্ষকের মোটরসাইকেলে আগুন ধরিয়ে দেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে স্থানীয় ব্যক্তিদের সঙ্গে তাদেরও সংঘর্ষ বাঁধে।

এ সময় ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে কলেজের কিছু ছাত্র ও স্থানীয় ব্যক্তিরা পুলিশের উপস্থিতিতে স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে দেন।