‘চিকিৎসা সেবায় নড়াইল হবে স্বর্নিভর’বিষয়ের ওপর মতবিনিময় অনুষ্ঠিত

90

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ‘নড়াইল হবে প্রজন্মের শ্রেষ্ঠ বাসস্থান’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে ‘চিকিৎসা সেবায় নড়াইল হবে স্বর্নিভর’ এ বিষয়ের ওপর এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। নড়াইলের সন্তান এ জেলায় স্বাস্থ্যবিভাগে কর্মরত এক ঝাঁক তরুণ-তরুণি চিকিৎসকদের নিয়ে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

গতকাল শনিবার (৩০ এপ্রিল) সন্ধ্যায় নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশনের আয়োজনে নড়াইল শহরের মহিষখোলায় শরীফ আব্দুল হাকিম ডায়াবেটিক হাসপাতাল চত্বরে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সহ-সভাপতি মো: শামীমুল ইসলাম টুলু।

আয়োজকরা জানান, ডায়াবেটিক রোগি কল্যাণ সমিতিতে (শরীফ আব্দুল হাকিম ডায়াবেটিক হাসপাতাল) যে সব সেটআপ রয়েছে এবং নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে আরও কিছু নতুন সংযোজন করা হয়েছে এবং আরও সংযোজনের পরিকল্পনা রয়েছে। এসব কিছুকে কাজে লাগিয়ে এই হাসপাতালকে ২৪ঘন্টা জরুরি চিকিৎসাসেবায় উন্নিত করতে চাই। আর জন্য প্রয়োজন দক্ষ ও অভিজ্ঞ সংশ্লিষ্ট সেক্টরের সুচিন্তিত মতামত প্রয়োজন। আর এ জন্যই আজকের এ মতবিনিময় সভার আয়োজন।

বক্তারা বলেন, ২৪ঘন্টা জরুরি চিকিৎসাসেবা নড়াইল জেলা শহরে সদর হাসপাতাল ছাড়া আর তেমন কোন প্রতিষ্ঠান এখনও পর্যন্ত গড়ে উঠেনি। সেসব কথা বিবেচনা করে প্রায় দু’বছর আগ থেকেই ডায়াবেটিক রোগি কল্যাণ সমিতির সাথে নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশন একটি সমোঝতা স্মারক চুক্তির মাধ্যমে এখানে চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম শুরু করা হয়। বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারনে কাঙ্খিত লক্ষ্যে এখনও পর্যন্ত পৌঁছানো যায়নি।

বক্তারা বলেন, ২৪ঘন্টা জরুরি চিকিৎসাসেবা চালু করতে হলে প্রাথমিক পর্যায় এ প্রতিষ্ঠানে ১টি এক্স-রে মেশিন, ইসিজি, সিসিইউ, জরুরি বেড এবং পাশে ১টি মেডিসিনের দোকান থাকা প্রয়োজন। এছাড়া দ্রুত দক্ষ ও অভিজ্ঞ ব্যক্তিদের সমন্বয় একটি পরিকল্পনা করতে হবে।

এ সময় তরুণ চিকিৎসকবৃন্দ ও আলোচকরা বলেন, আমরা এ হাসাতালে যেসব মেডিকেল ইকুপমেন্ট বা সার্জিক্যাল যন্ত্রপাতি সংযোজন করবো তার আগে ভাবতে হবে ওই সংযোজিত যন্ত্রপাতি পরিচালনা করার মতো আমাদের দক্ষ ব্যক্তি আছে কি না? এসব পূর্বভাগে বিবেচনায় না আনলে ২৪ঘন্টা জরুরি চিকিৎসাসেবা চালু করা এবং তা টিকিয়ে রাখা কষ্ট হবে।

এ সময় তরুণ-তরুণি চিকিৎসকবৃন্দ নিজ জেলায় কর্মরত থাকা অবস্থায় সার্বিকভাবে সহযোগিতার আশ্বাস দেন।

প্রস্তাবিত বিষয়ের ওপর আলোচনা রাখেন, সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা: সুজল কুমার বকসি, শিশু বিশেষজ্ঞ ডা. আলিমুজ্জামান সেতু, ডা. সৈয়দ শফিক তমাল, ডা. মার্সিয়া আহমেদ, ডা. দীপ বিশ্বাস সুদীপ, ডা. পার্থ সারথি রায়, ডা. তনিমা রহমান, ডাঃ জামিউল হাসান সেতু, বিশিষ্ট সমাজসেবক শাহ আলম, নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক তারিকুল ইসলাম অনিক, কোষাধ্যক্ষ মীর্জা নজরুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক কামরুল আলম, ইস্্রাফিল খবির রাজু প্রমুখ।

এসময় সংগঠনের অন্যান্য কর্মকর্তারা, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।