ক্ষমতা ধরে রাখার ‘নয়া মিশন’ নতুন ইসি: রব

3

ঢাকা: আইনি মারপ্যাঁচের নতুন মোড়কে নির্বাচন কমিশন গঠনকে সরকারের ক্ষমতা আঁকড়ে থাকার ‘নয়া মিশন’ আখ্যায়িত করে জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন, নতুন নির্বাচন কমিশন নূরুল হুদার ব্যর্থ কমিশনেরই প্রতিচ্ছবি। অনুগ্রহভাজন একজন আমলার নেতৃত্বাধীন এই ধরনের কমিশন দিয়ে সরকার ক্ষমতা ধরে রাখার আরেকটি বলয় সৃষ্টি করেছে মাত্র।

সোমবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

আ স ম রব বলেন, নির্বাচনী ব্যবস্থাকে ধ্বংসস্তূপে পরিণত করার জন্য দায়ী ‘হুদা কমিশন’ এর সচিবকে এবার নির্বাচন কমিশনার হিসেবে নিয়োগ দেওয়ায় প্রমাণ হয় সরকার নির্বাচন কমিশনকে আগের মতোই অনুগত রাখতে ইচ্ছুক। অতীতে প্রমাণ হয়েছে, এই ধরনের কমিশনকে নির্বাচনকালীন সময়ে অসাংবিধানিকভাবে নিয়ন্ত্রণ করার অপকৌশলে সরকার সিদ্ধহস্ত। এরই ধারাবাহিকতায় নবগঠিত নির্বাচন কমিশনকে সরকার নির্বাহী বিভাগের ‘আত্তীকৃত’ প্রতিষ্ঠান হিসেবে ব্যবহার করবে—এতে দেশবাসী আশঙ্কা করছে।

জেএসডি সভাপতি বলেন, দলীয় সরকারই ভোটাধিকার প্রয়োগ ও নির্বাচনের জন্য সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ। সুতরাং জনগণের ভোটাধিকার, গণতন্ত্র এবং নির্বাচন প্রশ্নে নির্বাচন কমিশন অনেক গৌণ হয়ে পড়েছে। রাষ্ট্র মেরামতের প্রয়োজনে দেশ ও জাতির স্বার্থে ‘জাতীয় সরকার’ গঠন প্রক্রিয়া নিয়ে অবিলম্বে আলোচনা শুরু করার আহ্বান জানাচ্ছি।