আমি যদি পুতিনের মা হতাম…

25

ইউক্রেনে তাণ্ডব শুরু করেছে রুশ সেনারা। মুহুর্মুহু চলছে গুলি, একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানছে কিয়েভে। এর সব কিছুই হচ্ছে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের নির্দেশে। তার ইস্পাত-কঠিন মনোভাবের কারণে শান্তিপূর্ণ সমাধানের পথ আপাতত বন্ধ। কিন্তু পুতিন যদি ছোটবেলায় ‘উপযুক্ত আদর’ পেতেন, তাহলে হয়তো এমন পরিস্থিতি সৃষ্টি হতো না, পৃথিবী হয়তো আজও শান্তিপূর্ণই থাকতো! সেটি না হওয়ায় পুতিনের মাকে দায়ী করেছেন মার্কিন অভিনেত্রী অ্যানালিন ম্যাকর্ড।

বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রাশিয়া ইউক্রেন আক্রমণের দিন পুতিনের উদ্দেশ্যে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন অ্যানালিন। তাতে কবিতার ছন্দে ছন্দে দাবি করেছেন, তিনি যদি রুশ প্রেসিডেন্টের মা হতেন, তাহলে পরিস্থিতি অন্যরকম থাকতো।

৩৪ বছর বয়সী এ তারকা বলেন, আমি দুঃখিত যে, আপনার (পুতিন) মা হইনি। আমি যদি আপনার মা হতাম, তাহলে অনেক আদর পেতেন। আনন্দের আলোয় উজ্জ্বল বাহুবন্দি থাকতেন। গল্পের এই দুর্দশা কখনোই আমাদের চোখের সামনে আসতো না। রাতের আকাশের নিচে শান্তিতে বসে থাকতো জাতিগুলো।

তিনি বলেন, আমি যদি আপনার মা হতাম, পৃথিবীটা উষ্ণ থাকতো। অনেক হাসি-আনন্দ থাকতো, কোনো কিছুই ক্ষতি করতো না। আমি সেই কষ্ট কল্পনাও করতে পারি না, যা আপনি দেখেছেন, বিশ্বাস করেছেন এবং সেসব চিন্তা আপনাকে শিখিয়েছে, আপনি একটি নিষ্ঠুর, বিচারহীন জগতে বাস করেন। এ কারণেই কি আপনি এখন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে, কেউ আপনার ভালোটা পাবে না? এ জন্যই কি আপনি দুনিয়াটা ছিনিয়ে নিতে লজ্জা পান না? জীবনের প্রথম দিকে এত সব কলহের ভয় আপনার ছোট্ট শরীরকে আষ্টেপৃষ্ঠে জড়িয়ে ধরেছিল বলেই কি এমন?

ভিডিওতে অ্যানালিন ম্যাকর্ড আরও বলেন, প্রিয় পুতিন, আমি যদি আপনার মা হতাম, তাহলে হয়তো অলিখিত যৌবনের অত্যাচার আপনার হৃদয়ে পৃথিবীর বিরুদ্ধে এমন নিষ্ঠুরতার প্রতিশ্রুতি জাগ্রত করতো না।

ভ্লাদিমির পুতিনের জীবনী থেকে জানা যায়, তিনি প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগেই বাবা-মা হারান। সাবেক কেজিবি গোয়েন্দার ছোটবেলা সম্পর্কে খুব কমই জানা যায়। তার মায়ের নাম মারিয়া ইভানোভনা পুতিনা, তিনি একটি কারখানায় কাজ করতেন। বাবা ভ্লাদিমির স্পিরিডোনোভিচ পুতিন সোভিয়েত নৌবাহিনীর সদস্য ছিলেন।

অ্যানালিনের ২ মিনিট ২০ সেকেন্ডের ওই ভিডিও নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন নেটিজেনরা। অনেকেই এমন ‘শক্তিশালী কবিতা’র জন্য তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। তবে কেউ কেউ এ নিয়ে মজাও করেছেন।

এক টুইটার ব্যবহারকারী কৌতুক করে বলেছেন, এটি অবশ্যই পুতিনকে থামিয়ে দেবে! অ্যানালিন, আপনি সত্যিই অনেক শক্তিশালী ও সাহসী।

সূত্র: লস অ্যাঞ্জেসল টাইমস