বিএনপি নেতারা মানসিকভাবে ভারসাম্যহীন হয়ে পড়েছেন

14

কুষ্টিয়া: আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও সংসদ সদস্য মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, বিএনপির সমাবেশ বন্ধ করতে নয়, করোনা থেকে বাচঁতে বিধি-নিষেধ দিয়েছে সরকার। বিএনপি নেতারা মানসিকভাবে ভারসাম্যহীন হয়ে পড়েছেন।

করোনা প্রতিরোধের জন্য সরকার কিছু বিধি-নিষেধ জারি করেছে। সেটি নিয়ে বিএনপি নেতারা বলছেন, তাদের সমাবেশ বন্ধ করতে সরকার এ বিধি-নিষেধ দিয়েছে, যোগ করেন হানিফ।

বিএনপি এসব কথা বলে জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টির চেষ্টা করছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) দুপুরে কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে হানিফ এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, আমরা পত্রিকা মারফত জানতে পেরেছি, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও তার স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এতেই বোঝা যাচ্ছে, দেশে করোনা ভয়াবহ আকার ধারণ করছে। এরই মধ্যে করোনা শনাক্তের হার ১ শতাংশ থেকে বেড়ে ৭ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। এ মহামারি থেকে জাতিকে রক্ষা করার জন্য বিধি-নিষেধ দেওয়া হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন প্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে হানিফ বলেন, জনগণের আস্থার প্রতীক নৌকার প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভী। তিনি নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করবেন।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এদেশে নির্বাচন কমিশন আইন নেই। কিন্তু চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যে নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে। এতো দ্রুত নির্বাচন কমিশন আইন তৈরি করা সম্ভব নয়। তাই বর্তমানে যে গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা আছে, সে অনুযায়ী নতুন নির্বাচন কমিশন গঠনের প্রক্রিয়া চলছে। সে ক্ষেত্রে সব রাজনৈতিক দলের নৈতিক দায়িত্ব হলো- রাষ্ট্রপতির আহ্বানে সাড়া দিয়ে কমিশন গঠনে সহায়তা করা। কোনো রাজনৈতিক দল চাইলে রাষ্ট্রপতির আহ্বানে সাড়া নাও দিতে পারে, তাই বলে নির্বাচন কমিশন গঠন থেমে থাকতে পারে না।

করোনার নতুন ধরন ওমিক্রন মোকাবিলায় সরকারের সব ধরনের প্রস্তুতি রয়েছে উল্লেখ করে হানিফ সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান জানান।

কলেজের শিক্ষক, কর্মকর্তা, শিক্ষার্থী ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।