টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ: আমিরাত-ওমানের চার ভেন্যুতে

29

ডেস্ক রিপোর্ট : চলতি বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ভারতের পরিবর্তে সংযুক্ত আরব-আমিরাতের অনুষ্ঠিত হবে -এটা নিশ্চিত হয়েছে আরও দু’দিন আগে। তবে ভেন্যু তালিকা চূড়ান্ত না হওয়ায় সেটিও নিশ্চিত হলো। আইসিসি জানিয়েছে, এ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ সংযুক্ত আরব-আমিরাতের তিনটির সাথে ওমানের একটি ভেন্যুতেও অনুষ্ঠিত হবে।

মঙ্গলবার (২৯ জুন) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আইসিসি এ তথ্য জানিয়েছে।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের এ আসরটি ভারতে হওয়ার কথা ছিল। তবে নিয়ন্ত্রণহীন করোনা পরিস্থির কারণে সংযুক্ত আরব-আমিরাতে সরিয়ে নেওয়া হয়। নিজ দেশে ভারত না পারলেও আসরটির আয়োজক হিসেবে বোর্ড অব কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়া’ই (বিসিসিআই) থাকছে।

সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ওমানের ভেন্যুগুলো হলো- দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়াম, শেখ জায়েদ স্টেডিয়াম, শারজাহ স্টেডিয়াম এবং ওমান ক্রিকেট গ্রাউন্ড।

মূল পর্বের খেলা শুরুর আগে ৮ দলের অংশগ্রহণে কোয়ালিফায়ার রাউন্ড অনুষ্ঠিত হবে। কোয়ালিফায়ারের ম্যাচগুলো ওমান ও আরব-আমিরাত মিলিয়ে অনুষ্ঠিত হবে।

প্রথমপর্বে অংশ নেওয়া আট দল হলো- বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা, স্কটল্যান্ড, ওমান, নামিবিয়া, আয়ারল্যান্ড, নেদারল্যান্ড ও পাপুয়া নিউগিনি। এ আট দল থেকে কোয়ালিফায়ার চার দল মূলপর্বে বাকি ৮ দলের সঙ্গে বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করবে।

বিজ্ঞপ্তিতে আইসিসির প্রধান নির্বাহী জিওফ এলার্ডিস বলেছেন, ‘টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিরাপদে আয়োজন করাই আমাদের মূল লক্ষ্য। ভারতে আয়োজন করতে না পারায় আমরা হতাশ। তবে আমরা (আইসিসি) বিসিসিআই, ওমান ক্রিকেট বোর্ড এবং আমিরাতের সাথে সমন্বিতভাবে কাজ করবো, যেন দর্শকরা একটি সুন্দর টুর্নামেন্ট উপভোগ করতে পারেন।’

এ বিষয়ে বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলি বলেছেন, ‘সংযুক্ত আরব-আমিরাত এবং ওমানে বিশ্বকাপ আয়োজনের জন্য আমরা মুখিয়ে আছি। ভারতে এটি আয়োজন করতে পারলে আমরা খুশি হতাম। কিন্তু করোনা পরিস্থিতির কারণে ভারতে আয়োজন করে আমরা অনিশ্চয়তায় ফেলতে চাইনি।’