সবধরনের ষড়যন্ত্র রুখতে ও লোহাগড়ায় ‘অর্থনৈতিক অঞ্চল’ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবিতে মানববন্ধন

161

নড়াইল কণ্ঠ : নড়াইলের লোহাগড়ার মধুমতি নদী পাড়ে ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবিতে মানববন্ধন ও প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি করা হয়েছে। বুধবার (২২ জানুয়ারি) সকাল ১১টায় লোহাগড়া উপজেলা পরিষদের গেটের সামনের সড়কে লোহাগড়ার উপজেলার সচেতন নাগরিক সমাজের আয়োজনে ও সাপ্তাহিক ও অনলাইন পত্রিকা নড়াইল কণ্ঠ ও টিম তারুণ্য-১০০ এর সার্বিক সহযোগিতায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে লোহাগড়ার উপজেলার সচেতন নাগরিক সমাজের সমাজকর্মী ও সাবেক লোহাগড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সরদার আব্দুল হাই এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, নড়াইল কণ্ঠের সম্পাদক জেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক কাজী হাফিজুর রহমান, পৌর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সাবেক লোহাগড়া পৌর কাউন্সিলর মো: মোজাম খান, লক্ষ্মীপাশা বাজার বনিক সমিতির সভাপতি ও পৌর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক মো: লিয়াকত হোসাইন বিশ্বাস, সমাজকর্মী সৈয়দ খায়রুল আলম, টিম তারুণ্য-১০০ এর প্রতিষ্ঠাতা মো: রাসেল বিল্লাহ, লোহাগড়া ছাত্রলীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক রুমান রায়হান প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, উন্নয়ন বঞ্চিত নড়াইলবাসির দীর্ঘবছরের স্বপ্ন বাস্তবায়নে সবধরনের ষড়যন্ত্র রুখতে লোহাগড়াসহ মাশরাফী বিন মোর্ত্তজার সংসদীয় এলাকার সকল মানুষ প্রস্তুত রয়েছে। পরিবেশবান্ধব, কৃষিবান্ধব ও জনবান্ধব সরকারের কোন উন্নয়নে বাঁধা লোহাগড়াবাসি বরদাস্ত করবে না।

এসময় বক্তারা আরো বলেন, মধুমতি এলাকায় কিছু নদী সিকস্তি বসতি রয়েছে তারা ক্ষতিগ্রস্থ হবে ঠিকই। কিন্তু আমরা মনে করি জনবান্ধব এই সরকার তাদের কথা নিশ্চিয় বিবেচনা করবেন। এর পাশাপাশি একটি কুচক্রি মহল সরকারের এই মহতি উদ্যোগকে নৎসাত করার অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে তাদেরকে চিহ্নিত করতে হবে। এলাকার মানুষকে ‘অর্থনৈতিক অঞ্চল’ সম্পর্কে বুঝাতে হবে। এধরনের অঞ্চল গড়ে উঠলে এলাকার বেকারত্ব দুর হবে। বিভিন্ন কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। সর্বোপরি বসবাসের জন্য শ্রেষ্ঠ বাসস্থান হবে নড়াইল জেলা।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক লোহাগড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ওয়াহিদুজ্জামান বাচ্চু, লোহাগড়া বাজার বনিক সমিতির সভাপতি মো: শরিফুল ইসলাম, সমাজকর্মী মো: লুৎফর রহমান, প্রথম আলোর প্রতিনিধি সহকারি অধ্যাপক উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক মারুফ সামদানী, সমকালের প্রতিনিধি প্রভাষক রেজাউল করিম, সাংবাদিক এস এম আলগীর কবির সহ বিভিন্ন পেশাশ্রেণির পেশার শতাধিক মানুষ।

মানববন্ধ শেষে লোহাগড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে ‘নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফী বিন মোর্ত্তজার সংসদীয় এলাকায় মধুমতির পাড়ে লোহাগড়ায় ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবীতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর একটি স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

এ সময় লোহাগড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও সাবেক লোহাগড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এস এম এ হান্নান (রুনু) মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপিতে স্বাক্ষর করেন এবং এ আন্দোলনের সাথে সহমত প্রকাশ করেন।

বিস্তারিত জানতে নিচের ভিডিও লিংকে ক্লিক করুন:
Mashrafes Economic Zone Lohagara

স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়,
‘নড়াইল-২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য মাশরাফী বিন মোর্ত্তজার সংসদীয় এলাকার উন্নয়ন বঞ্চিত মানুষের পক্ষ থেকে জানাচ্ছি যে, অতিসম্প্রতি আমরা অবগত হয়েছি আপনার আপনার প্রিয় মাশরাফী বিন মোর্ত্তজার বিশেষ অনুরোধে আপনি তার এলাকার মানুষের সার্বিক উন্নয়নের লক্ষ্যে ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ গড়ে তোলার উদ্যোগ নিয়েছেন।

এ বিষয়ে কতিপয় কুচক্রি মহল এই ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ নির্ধারিত এলাকায় না হওয়ার জন্য অপতৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে। আমরা মাশরাফীর বিন মোর্ত্তজার নড়াইল-২ আসনের সংসদীয় এলাকার সচেতন নাগরিক সমাজ এই হীনঅপতৎপরতা ও অপশক্তিকে প্রতিহত করতে প্রস্তুত রয়েছি।

অদ্য ২২ জানুয়ারি ২০২০ সকাল ১১টায় লোহাগড়ার উপজেলা পরিষদের সামনের সড়কে লোহাগড়ার উপজেলার সচেতন নাগরিক সমাজের আয়োজনে এবং নড়াইল কণ্ঠ সাপ্তাহিক ও অনলাইন পত্রিকা ও টিম তারুণ্য-১০০ এর সার্বিক সহযোগিতায় লোহাগড়ায় ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবীতে একটি মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।
অতএব মহানুভবের প্রতি নড়াইল-২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য মাশরাফী বিন মোর্ত্তজার সংসদীয় এলাকার উন্নয়ন বঞ্চিত মানুষের একান্ত দাবী সরকার কর্তৃক নির্ধারিত এলাকায় ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ দ্রুত বাস্তবায়ন করতে একান্ত মর্জি হয়।’