উপহারের বাক্সে তাজা বোমা, খুলতেই বিস্ফোরণে মৃত বর-সহ ২

59

মর্মান্তিক! বউভাতে পাওয়া উপহারের বাক্সে ছিল বোমা। বিয়ের পাঁচ দিনের দিন সেই উপহারের বাক্স খুলতে গিয়ে প্রাণ হারালেন যুবক। উপহারের বাক্স বলে কথা, তাই নাতি-নাতবউয়ের সঙ্গে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন ঠাকুরমাও। বিস্ফোরণের সঙ্গে সঙ্গেই তাঁরও মৃত্যু হয়। আশঙ্কাজনক অবস্থায় নব বিবাহিত দম্পতিকে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থাতেই প্রাণ হারান ওই যুবক। এখনও স্থানীয় বুরলা সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন মৃত যুবকের স্ত্রী। শুক্রবার মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে ওড়িশার বোলাঙ্গির জেলায়।
সোমবার বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন ওই দম্পতি। বুধবার ছিল বউভাতের অনুষ্ঠান। বউভাতের কাজকর্ম মেটার পাঁচ দিন পর উপহারের বাক্স খুলতে বসেন দম্পতি। সঙ্গে ছিলেন বিবাহিত যুবকের ঠাকুরমাও। একটার পর একটা বাক্স খুলে উপহার দেখার পালা চলছিল। এই সময়ই ঘটে বিপত্তি। একটা বাক্স খুলতেই বিস্ফোরণ ঘটে। বাক্সটি যুবকের হাতেই ছিল। তিনজন প্রায় গায়ে গায়ে বসে উপহার দেখছিলেন। তাই বিস্ফোরণের আঁচ গিয়ে পড়ে তিনজনের উপরেই। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় ঠাকুরমার। বাকি দুজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।
এই প্রসঙ্গে পন্থ নগরের এসডিপিও সেসাদেবা বারিহা জানিয়েছেন, বৃদ্ধা মহিলাকে হাসপাতালে নিয়ে এলে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করে। স্থানীয় বোলাঙ্গির জেলা হাসপাতালেই তাঁকে নিয়ে আসা হয়েছিল। অন্যদিকে, আহত যুবককে রৌরকেলার ইস্পাত জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থাতেই মৃত্যু হয় তাঁর। এদিকে বুরলা সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ওই গৃহবধূ। বিস্ফোরণস্থল থেকে উপহারের বাক্সের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। উপহারদাতার খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে। তদন্তে নেমেছে পুলিশ।
জানা গিয়েছে, বউভাতের অনুষ্ঠানে এক অপরিচিত ব্যক্তি নিমন্ত্রণ রক্ষা করতে এসেছিল। নব বিবাহিত দম্পতিকে সংশ্লিষ্ট উপহারের বাক্সটি সেই দেয়। এদিকে, বিয়ের পাঁচ দিনের মাথায় এহেন মর্মান্তিক ঘটনায় শোকে বিহ্বল দুই বাড়ির সদস্যেরা।