৭১ জন যাত্রীকে নিয়ে ভেঙে পড়ল রুশ বিমান, সকলেরই মৃত্যুর শঙ্কা

78

রুশ বিমান সংস্থা সারাতভ এয়ারলাইন্সের যাত্রীবাহী একটি বিমান রবিবার ভেঙে পড়ল মস্কোর কাছে। ওই বিমানে সবমিলিয়ে প্রায় ৭১ জন যাত্রী ছিলেন। দুর্ঘটনায় প্রত্যেকেরই মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে। যে গ্রামে বিমানটি ভেঙে পড়েছে, সেখানকার বাসিন্দারাই জানিয়েছেন, জ্বলন্ত বিমানটি যেভাবে আকাশ থেকে এসে জমিতে আছড়ে পড়েছে ও তাতে বিস্ফোরণ ঘটেছে, তারপর কোনও যাত্রীরই বেঁচে থাকার প্রশ্নই ওঠে না।
রুশ সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, মস্কোর একটি বিমানবন্দর থেকে টেক অফ করার ১০ মিনিটের মধ্যে বিমানটি রাডার থেকে হারিয়ে যায়। বিমানটির পাইলটের সঙ্গে এটিএসের সঙ্গে যোগাযোগ ব্যবস্থা সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। দুর্ঘটনার কারণ এখনও স্পষ্ট নয়। প্রাথমিকভাবে পাওয়া খবরে মনে করা হচ্ছে, পাইলটের কোনও গাফিলতি বা খারাপ আবহাওয়ার কারণে বিমানটি ভেঙে পড়তে পারে।
বিমানটি মূলত একটি ছোট এএন-১৪৮ অ্যান্টনভ মডেলের। স্থানীয় যাত্রী পরিবহণে ব্যবহার করা হয়। দুর্ঘটনাগ্রস্ত বিমানটি যাচ্ছিল কাজাখস্তানের কাছে ওর্স্ক শহরে। একটি রুশ টিভি চ্যানেল বিমানটির ধ্বংসাবশেষের ছবি প্রকাশ্যে এনেছে। যদিও সরকারি তরফে এখনও নিহতদের সংখ্যা নিয়ে কোনও বিবৃতি দেওয়া হয়নি। রুশ টিভি চ্যানেলের দাবি, কোনও যাত্রীই আর বেঁচে নেই। বিমানে ৬৫ জন যাত্রী ও ছয়জন ক্রিউ মেম্বার ছিলেন।