খালেদা জিয়ার কোলে রোহিঙ্গা শিশু মোবারক

149

নড়াইল কণ্ঠ  :  মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতনের শিকার হয়ে বাংলাদেশে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবির পরিদর্শন করার সময় মোবারক নামের এক রো‌হিঙ্গা শিশু‌কে কোলে নিয়ে আদর ক‌রলেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।
৩০ অক্টোবর সোমবার দুপু‌রে বালুখালী-২ ক্যাম্পে রো‌হিঙ্গা‌দের মা‌ঝে ত্রাণ বিতরণকা‌লে ওই রো‌হিঙ্গা শিশু‌কে কোলে নিয়ে আদর করেন তিনি।
বিএনপির মিডিয়া সেল কর্মকর্তা শামসুদ্দিন দিদার জানান, খালেদা জিয়ার কোলের শিশুটির নাম মোবারক। মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতনে তার বাবা মারা গেছেন। পিতৃহীন মোবারককে কোলে নিয়ে তার মা ত্রাণ নিতে আসলে বিএনপি চেয়ারপারসন তাকে কোলে নিয়ে আদর করেন।
খালেদা জিয়াকে কাছে পেয়ে মোবারকের মা বলেন, ‘মিয়ানমার সেনাবাহিনী মোবারকের বাবাকে হত্যা করেছে। ছেলেকে নিয়ে কোনোমতে জীবন নিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছি।’
বাবা হারা রোহিঙ্গা শিশু মোবারককে কোলে নিচ্ছেন খালেদা জিয়া। ছবি: সংগৃহীত
এ সময় খালেদা জিয়া মোবারকের মাকে সান্ত্বনা দিয়ে বলেন, ‘একটু সময় লাগবে, অপেক্ষা করো। রাখাইনে শান্তি আসবে। আমরা রাখাইনে শান্তি আনব। তোমরা সেখানে ফিরে যাবে।’
প্রসঙ্গত, রোহিঙ্গাদের মাঝে ত্রাণ দিতে খালেদা জিয়া ৪৫ ট্রাক ত্রাণ নিয়ে উখিয়া পৌঁছান। সেখান থেকে ৩৬ ট্রাক ত্রাণ সেনাবাহিনীর কাছে হস্তান্তর করা হয়। আর বাকি নয় ট্রাক ত্রাণের মধ্যে বিএনপি চেয়ারপারসন পালংখালী ইউনিয়নের ময়নারসেনা শরণার্থী ক্যাম্পের রোহিঙ্গাদের মধ্যে কিছু বিতরণ করেন। সেখান থেকে তিনি হাকিমপাড়া ও বালুখালীতে গিয়ে বাকি ত্রাণ বিতরণ করবেন।
এর আগে রোববার রাত ৮টা ৫ মিনিটে কক্সবাজার সার্কিট হাউজে পৌঁছান বিএনপি নেত্রী। রোহিঙ্গা শিবির পরিদর্শন ও ত্রাণ বিতরণ করতে কক্সবাজার শহর থেকে উখিয়ার শরণার্থী শিবিরের উদ্দেশে রওনা হন তিনি।
নেত্রীকে শুভেচ্ছা জানাতে বিপুল সংখ্যক নেতা-কর্মী সার্কিট হাউজে যান। এছাড়া মহাসড়কের রাস্তার দুপাশে ব্যানার, ফেস্টুন ও প্লাকার্ড নিয়ে খালেদা জিয়াকে শুভেচ্ছা জানাতে দাঁড়িয়ে থাকেন নেতা-কর্মীরা।
এর আগে বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গা শরণার্থীদের পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ ও তাদের ত্রাণ দিতে শনিবার সকালে ঢাকা থেকে রওনা দেন তিনি।