নড়াইলের দু’পৌরসভার মনোনয় বাছাই সম্পন্ন, বাতিল ১

139

নড়াইল কণ্ঠ : নড়াইল ও কালিয়া পৌরসভার মনোনয়পত্র বাছাই সম্পন্ন, মেয়র পদে ১৭ কাউন্সিলর ৭৭  নারী কাউন্সিলর পদে ২০ প্রার্থীতা বৈধ ঘোষণা। ঋণ খেলাপির দায়ে ১ কাউন্সিলর প্রার্থীর মানোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে। রবিবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে স্ব স্ব পৌর রিটার্নিং অফিসার এ ঘোষণা দেন।

নড়াইল পৌরসভার রিটার্নিং অফিসার ও অতিরিক্তি জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো: রায়হান কাওছার  জানান, নড়াইল পৌরসভায় মেয়র পদে ১০, কাউন্সিলর পদে ৪১ ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১০জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। এই পৌরসভার বৈধ মেয়র প্রাথীরা হলেন, আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী জাহাঙ্গীর হোসেন বিশ্বাস, বিএনপি’র জুলফিকার আলী, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি’র পারভেজ আলম, জাসদের সৈয়দ আরিফুল ইসলাম পান্থ, এনপিপি’র মোঃ আনোয়ার হোসেন খান ও জাতীয় পাটি’র (এরশাদ) অ্যাডভোকেট ফায়েকুজ্জামান ফিরোজ। স্বতন্ত্রপার্থী হিসেবে বৈধ মেয়র প্রাথীরা হলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক সোহরাব হোসেন বিশ^াস, পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সরদার আলমগীর হোসেন, আওয়ামীলীগ নেতা নড়াইল চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি হাসানাুজ্জামান, আওয়ামীলীগ নেত্রী আঞ্জুমান আরা।

কালিয়া পৌরসভার রিটার্ণিং অফিসার সেখ আনোয়ার হোসেন জানান, কালিয়া পৌরসভায় মেয়র পদে ৭জন, কাউন্সিলর পদে ৩৬ জন এবং সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১০জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। ঋণ খেলাপির দায়ে ৭নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী রাশেদুল ইসলামের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। এই পৌরসভার বৈধ মেয়র প্রার্থীরা হলেন- আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী ওয়াহিদুজ্জামান হীরা, বিএনপি’র স.ম ওয়াহিদুজ্জামান মিলু, স্বতন্ত্র প্রার্থী আওয়ামীলীগ নেতা  বিএম ইমদাদুল হক টুলু, লায়েক শেখ, ফকির মুশফিকুর রহমান লিটন, সেহেলী ইসলাম নিরী ও এসএম ইকরাম রেজা।

গত দু’দিন ধরে যাচাই-বাছাইকালে প্রার্থীসহ তাদের প্রস্তাবক-সমর্থকরা উপস্থিত ছিলেন।