নড়াইলে বিশ্ব পানি দিবস পালিত

131

নড়াইলকণ্ঠ ॥ “নদ নদী খাল বিলে দূষণ চলে যদি, জনগণের দু:খ বাড়বে নিরবধি” এ প্রতিবাদ্যকে সামনে রেখে নড়াইলে বিশ্ব NK_March_2017_02115পানি দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে বুধবার ( ২২ মার্চ ) সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসন ও বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের আয়োজনে জেলা কালেক্টরেট চত্বর থেকে এ র‌্যালি বের হয়। র‌্যালিটি জেলা প্রশাসক মো: হেলাল মাহমুদ শরীফের নেতৃত্বে আদালত সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে একই স্থানে যেয়ে শেষ হয়।
র‌্যালি শেষে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসক মো: হেলাল মাহমুদ শরীফের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো: সিদ্দিকুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) কাজী মাহাবুবুর রশীদ, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্টেট কামরুল আরিফ, পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: শাহানেওয়াজ তালুকদার, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: সামিউল হক, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা হরিপদ মন্ডল, নড়াইল সিটিজেনস ভয়েস এর সমন্বয়ক কাজী হাফিজুর রহমান প্রমুখ।
জেলা প্রশাসক মো: হেলাল মাহমুদ শরীফ বলেন, নড়াইলের নদ নদী খাল বিলকে দুষণমুক্ত করতে হবে। এ ব্যাপারে নড়াইলে সিটিজেনস ভয়েস উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। আমরা আছি তাদের সাথে। নড়াইলের সর্বস্তরের মানুষের সম্পৃক্ততা বাড়িয়ে প্রাথমিকভাবে চিত্রা নদীকে বাঁচাতে হবে। চিত্রাকে আর নষ্ট হতে দেংয়া যাবে না। যারা ইতিমধ্যে চিত্রার সাথে টয়লেট সংযোগ এখনও বিচ্ছিন্ন করেননি, অবৈধ স্থাপনা অপসরণ করেননি, আবর্জনা ফেলা অব্যাহত রেখেছেন তারা আগামি ৩১ মার্চের মধ্যে এসব কর্মকান্ড অপসারণ ও বন্ধ করতে হবে। তিনি এ প্রসঙ্গে আরো বলেন, নদী আমাদের ‘মা’, ‘মা’কে বাঁচাতে হবে। আসুন সবাই মিলে আমাদের মাকে বাঁচাই।
এদিকে নড়াইলের পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: শাহানেওয়াজ তালুকদার তার বক্তব্যে বলেন, কেউ টয়লে স্থাপন করতে হলে অবশ্যই জলাশয়ের ৩০ মিটার দুরে করতে হবে। ইতিমধ্যে আমরা এ জেলার নদ নদী খাল বিলের অবস্থান নিরুপনের কাজ প্রায় সম্পন্ন করেছি। এর মধ্যে আঠারবাকি নদীর পুন:খনন চলছে। জেলার নবগঙ্গার ৪২ কিলোমিটার, চিত্রার ৫ কিলোমিটার, মধুমতির সাড়ে ৪ কিলোমিটার নদীপথের নাব্য ফিরে আনতে ড্রেইজিং করার জন্য ডিপিডি করে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। আশা করি ডিপিডি অনুমোদন পেলে আগামি অর্থবছর সমূহে এ সকল নদ নদী পুন:খনন হবে।