নড়াইলে গ্রামীণ ব্যাংকে ডাকাতির ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ২

357

নড়াইলকণ্ঠ ॥ নড়াইলে গ্রামীণ ব্যাংক মাইজপাড়া শাখায় ডাকাতির ঘটনায় দু’জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। আজ সোমবার সকালে তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে। ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক বাদি হয়ে গতকাল রবিবার (২২ জানুয়ারি) রাত ৮টার দিকে অজ্ঞাত পাঁচজনকে আসামি করে সদর থানায় মামলা দায়ের করেন।
সদর থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন বলেন, ব্যাংক ডাকাতির ঘটনায় জড়িত সন্দেহে গতকাল রবিবার) রাতে দু’জনকে গ্রেফতার করে সোমবার ( ২৩ জানুয়ারি) আদালতে পাঠানো হয়েছে। তদন্তের স্বার্থে তাদের নাম ও পরিচয় বলা যাচ্ছে না। ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, রবিবার (২২ জানুয়ারি) বিকেল ৪টার দিকে মাইজপাড়া বাজার এলাকায় ব্যাংকের নিজস্ব ভবনে ১৮ থেকে ২০ বছরের (আনুমানিক) পাঁচ যুবক হাটতে হাটতে ভেতরে প্রবেশ করে। তারা প্রথমে আমাদের সাথে কথা বলতে চায়। পরে পাঁচটি পিস্তল উঁচিয়ে সবাই জিম্মি করে। এ সময় আট কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং দু’জন গ্রাহক অফিসে ছিলেন। অস্ত্রধারীরা টাকা লুট করতে চায়লেও ব্যাংকের ভোল্টে কোনো টাকা ছিল না। আদায়কৃত (গ্রাহকদের কাছ থেকে) তিন লাখ এবং জনতা ব্যাংক মাইজপাড়া শাখা থেকে উত্তোলনকৃত দুই লাখ টাকা গ্রাহকদের মাঝে ঋণ হিসেবে প্রদান করে ১৭ হাজার টাকা উদ্বৃত্ত ছিল। ওই টাকা (১৭ হাজার টাকা) দুপুরে আবার জনতা ব্যাংকে জমা করে আসা হয়। তবে, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ব্যক্তিগত প্রায় ২৫ হাজার টাকা লুটসহ দু’জন মাঠকর্মীর কাছ থেকে চাবি ছিনিয়ে দু’টি মোটরসাইকেল (হিরো হোন্ডা ও বাজাজ প্লাটিনা) এবং আমাদের ব্যবহৃত সাতটি মোবাইল ফোন নিয়ে যায় তারা। পরে ছিনতাইকৃত মোটরসাইকেল চেপে ওই পাঁচ যুবক নড়াইলের দিকে পালিয়ে যায়। অস্ত্রধারী পাঁচ যুবকের মধ্যে একজনের মুখ কিছুটা ডাকা থাকলেও অন্যদের মুখ খোলা ছিল। এছাড়া সবার কাঁধে ব্যাগ ঝোলানো ছিল। তবে, ব্যাংকে কোনো সিসি ক্যামেরা ছিল না।