নড়াইলে রোকেয়া দিবসে শ্রেষ্ঠ জয়িতাদের সম্বর্ধনা

169

নড়াইলকণ্ঠ আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষে জয়িতা অন্বেষণে nk_december_2016_251বাংলাদেশ কার্যক্রমরে আওতায় নড়াইলে জয়িতাদের সম্বর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। শুক্রবার (০৯ ডিসেম্বর) সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলার ৫টি ক্যাটগরিতে ৫জনকে শ্রেষ্ঠ জয়িতা হিসেবে জেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর সম্মাননা ও স্বীকৃতি প্রদান করে। সম্মাননা ও স্বীকৃতি যারা পেলেন তার হলেন, অর্থনৈতিক সাফল্যে লোহাগড়ার কাশিপুর ইউনিয়নের চোরখালী গ্রামের বিধবা নারী প্রমিলা কিত্তর্নীয়া, শিক্ষা ও চাকুরী ক্ষেত্রে কালিয়ার মির্জাপুর গ্রামের বিধবা নারী শাহানারা পারভীন, সফল জননী নারী হিসেবে নড়াইল সদরের শিমুলিয়ার ছালেহা বেগম, নির্যাতনের বিভীষিকা মুছে ফেলে নতুন উদ্যমে জীবন শুরু যে নারী লোহাগড়ার দিঘলিয়ার ভিক্টোরিয়া আক্তার এবং সমাজ উন্নয়নে সদরের শেখহাটি ইউনিয়নের হাতিয়াড়ার কানন বালা গুপ্ত।
nk_december_2016_250জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মো: আনিছুর রহমানের সভাপতিত্বে আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) কাজী মাবুবুর রশীদ। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, নড়াইলকণ্ঠ অনলাইন নিউজের সম্পাদক কাজী হাফিজুর রহমান, জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক রাবেয়া ইউসুফ, লোহাগড়া মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মৌসুমী মজুমদার, কানন বালা গুপ্ত, ভিক্টোরিয়া আক্তার প্রমুখ।
পরে প্রধান অতিথি কাজী মাবুবুর রশীদ শ্রেষ্ঠ জয়িতাদের হাতে সম্মাননা ও স্বীকৃতি স্বরুপ ক্রেষ্ট তুলে দেন।
উল্লেখ্য, বেগম রোকেয়া ১৮৮০ সালের ৯ ডিসেম্বর রংপুর জেলার পায়রাবন্দ গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। রক্ষণশীল মুসলিম পরিবারে জন্ম নিয়ে তিনি নারী জাগরণের অগ্রদূতের ভূমিকায় অবতীর্ণ হন।
বাংলার নারী জাগরণের অগ্রদূত মহিয়সী নারী বেগম রোকেয়ার আজ ১৩৬তম জন্ম ও ৮৪তম মৃত্যুবার্ষিকী।তিনি উনবিংশ শতাব্দীর একজন খ্যাতিমান বাঙালি সাহিত্যিক ও সমাজ সংস্কারক। ১৯৩২ সালের ৯ ডিসেম্বর তিনি কলকাতায় মৃত্যুবরণ করেন।