নোয়াখালীতে নারী দিবসে সাইকেল র‌্যালি

136

নোয়াখালী : দেশের প্রায় ৭০ শতাংশ নারী ভূমিজ ও আর্থিক সম্পদ থেকে বঞ্চিত। সম্পদের মালিকানার ক্ষেত্রে লিঙ্গবৈষম্য নারীদের তুলনামূলকভাবে অধিক দারিদ্র্যর মধ্যে ঠেলে দেয়। স্থানীয়ত্বশীল উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা নিশ্চিত করতে হলে নারীর সম্পদ-মর্যাদা ও মজুরি বৈষম্য ধূর করতে হবে। গতকাল মঙ্গলবার নোয়াখালীতে নোয়াখালী নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি আয়োজিত আন্তর্জাতিক নারী দিবসের বক্তারা এই মতামত দেনন। ’সম্মান-সম্পদ, কর্মে ন্যায্যতা, গড়বে নারী-পুরুষ সমতা’ শ্লোগান নিয়ে জেলার বিভিন্ন উন্নয়ন সংগঠনের অংশগ্রহলে সাইকেল র‌্যালি, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। সাইকেল র‌্যালির উদ্বোধন করেন নোয়াখালী পুলিশ সুপার ইলিয়াস শরিফ পিপিএম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ড. মাহে আলম। র‌্যালিতে শতাধিক তরুন-তরুনী, উন্নয়ন কর্মী অংশগ্রহণ করেন। জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে থেকে শুরু হয়ে র‌্যালিটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে শিল্পকলা একাডেমি গিয়ে শেষ হয়।
পরে শিল্পকলা একাডেমিতে নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি শিরিন আক্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক বদরে মুনির ফেরদৌস, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুরুল ইসলাম, জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সাহিদা আক্তার, দেশের দ্রুততম মানবী নাজমুন্নাহার বিউটি, সহকারী পুলিশ সুপার ফাহিমা কাদের চৌধুরী, নোয়াখালী রুরাল ডেভেলপমেন্ট সোসাইটির প্রধান নির্বাহী আবদুল আউয়াল, গান্ধী আশ্রম ট্রাষ্টের পরিচালক রাহা নব কুমার, সুপ্রর জেলা সভাপতি মনুগুপ্ত, সাধারণ সম্পাদক নুরুল আলম মাসুদ, তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা কমিটির জেলা আহবায়ক আ.ন.ম জাহের উদ্দিন, ঘরনী নারী উন্নয়ন সংস্থার প্রধান নির্বাহী পপি রহমান, তৃণমূল নারী নেত্রী কুলসুম আক্তার।