যুক্তরাষ্ট্রের হাসপাতালে রোগির ভিড়, সবগুলো রাজ্যে কোভিড মহামারীতে প্রাকৃতিক দুর্যোগ

28

ডেস্ক রিপোর্ট: দেশটির সবচেয়ে বড় উৎসব ‘থ্যাংকসগিভিং ডে’তে ব্যাপক ভ্রমণের পর রোববার কোভিডে আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ৯ হাজার ৬৭১ জন। মারা গেছে ৭৩১ জন।

স্বাভাবিকভাবেই হাসপাতালগুলোতে আসন পাওয়া কষ্টকর। অতিরিক্ত কোনো আসন অবশিষ্ট নেই। অতিরিক্ত স্বাস্থ্যকর্মীও নেই। ইমার্জেন্সি মেডিসিন ফিজিশিয়ান ডা: মেগান রনে বলেন, ৫০টি রাজ্যে একই সময়ে প্রাকৃতিক দুর্যোগের মতো আঘাত হেনেছে করোনা। রোড আইল্যান্ডে ফিল্ড হাসপাতাল খোলা হলেও সবখানে তা সম্ভব হচ্ছে না। চিকিৎসক, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মী পাওয়া না গেলে ফিল্ড হাসপাতাল চালানো দায় হয়ে পড়েছে।

সংক্রমণ বিষয়ক শীর্ষ রোগ বিশেষজ্ঞ অ্যান্থনি ফাউচি আগেই থ্যাংকসগিভিং ডে উপলক্ষে করোনার সংক্রমণ তীব্রভাবে বেড়ে যাওয়ার বিষয়ে হুঁশিয়ার করেছিলেন। ফক্স নিউজকে তিনি বলেন, ভ্রমণের কারণে করোনার সংক্রমণ নিশ্চিতভাবেই তীব্র হচ্ছে। আগামী দু-তিন সপ্তাহে সম্ভবত করোনাভাইরাসের সংক্রমণ তীব্র থেকে তীব্রতর হতে দেখবো।

চিকিৎসকরা আরো বলছেন, এ মুহূর্তে যারা হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন তারা দুই সপ্তাহ বা এর আগে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। ডিসেম্বরের শেষে আসছে বড় দুই উৎসব খ্রিষ্টান ধর্মাবলম্বীদের বড়দিন ও নববর্ষ। ওই সময়ের লম্বা ছুটির মধ্যে কিছু কিছু স্থানে সবাইকে বাড়িতে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের হিসেব অনুযায়ী, মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় ২ লাখ ৭৩ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছে। আক্রান্ত ছাড়িয়েছে ১ কোটি ৩৭ লাখের বেশি।