নারায়নগঞ্জে ভাষা সৈনিক নাগিনা জোহা সমাজ কল্যাণ পরিষদের ১১ বীরকে সংবর্ধণা

4

ডেস্ক রিপোর্ট: নারায়নগঞ্জের বন্দরে ১১ নিবেদিত সৈনিককে সম্মাননা দিয়েছে ভাষা সৈনিক নাগিনা জোহা সমাজ কল্যাণ পরিষদ। করোনা প্রেক্ষাপটে জীবনবাজী রেখে মানুষের কল্যাণে নিঃস্বার্থভাবে কাজ করার স্বীকৃতি হিসেবে পরিষদের চেয়ারম্যান প্রকৌশলী স্বপ্নীল দাশ নিলয়ের নির্দেশে ১১ ওই বীরকে এ সম্মানে ভূষিত করা হয়।

রোববার বিকেল ৪টায় নারায়ণগঞ্জ বন্দরের ২৫নং ওয়ার্ডের দক্ষিণ লক্ষণখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের হলরুমে এক অনাড়ম্বরপূর্ণ অনুষ্ঠানে ওরা ১১জনের হাতে সম্মামনা স্মারক তুলে দেন সিলেট বিভাগীয় সমাজ সেবা কার্যালয়ের সদ্য পদোন্নতিপ্রাপ্ত সহকারি পরিচালক এস এম মোক্তার হোসেন ও দৈনিক বিজয় পত্রিকার সম্পাদক সাব্বির আহমেদ সেন্টু।

স্বাস্থ্যবিধি বজায় রেখে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক হিসাবে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা করেন নারায়ণগঞ্জ এডিটর’স ক্লাবের সভাপতি বাবু শ্যামল কুমার দাশ। অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেনন নারায়ণগঞ্জ মহানগর ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ভাষা সৈনিক নাগিনা জোহা সমাজ কল্যাণ পরিষদের কার্যকরি কমিটির উপদেষ্টা ছাত্রবীর অনাবিল দাশ নির্ঝর। এছাড়া অনুষ্ঠানে সম্মনিত মেহমান হিসেবে ছিলেন মিডিয়া ভিশন কালচারাল একাডেমির পরিচালক সোনিয়া আহমেদ।

প্রসঙ্গতঃ’সম্মাননা স্মারক প্রদান অনুষ্ঠান-২০২০ইং’ এ ভয়ানক করোনা ভাইরাস মহামারীতে ক্ষতিগ্রস্ত সমাজ ও জনগনের কল্যাণে সংগঠনের নেতৃবৃন্দের বিশেষ ভূমিকার বিষয়টিকে প্রাধান্য দিয়ে সম্মাননা স্মারকের জন্য বেশ কিছু নেতৃবৃন্দকে মনোনীত করা হয়েছে। প্রধাণ অতিথির বক্তব্যে এস এম মোক্তার হোসেন বলেন, একেই বলে সমাজ সেবা,ভাষা সৈনিক নাগিনা জোহা পরিষদের সদস্যরা যে কাজগুলো করছে। আজকালতো অনেক সংগঠন সরকারি অনুদান নেয় ঠিকই কিন্তু তাদের কোন কার্যক্রমই চোখে পড়েনা। অথচ বেসরকারি ও রেজিষ্ট্রেশনবিহীন একটি সংগঠন হয়ে ভাষা সৈনিক নাগিনা জোহা ইর্ষণীয় কাজ করে যাচ্ছে। আমি তাদের জন্য দোয়া করি তারা যেনো ভবিষ্যতে সমাজের কল্যাণে অগ্রণী ভূমিকা রাখতে পারে। সর্বোপরি তাদের প্রতি অনুরোধ থাকবে তারা যেনো অতি দ্রুত সংগঠনটিকে রেজিষ্ট্রেশন করে নেয়।