নড়াইল সদর হাসপাতালে মহিলা দালাল আটক, ৭দিনের কারাদন্ড

35

নড়াইল কণ্ঠ : নড়াইল সদর হাসপাতাল থেকে রোগী ভাগিয়ে নেয়ার সময় আফরোজা (৪৫) নামে এক মহিলা দালালকে আটক করেছে পুলিশ। পরে ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক তাকে এক সপ্তাহের বিনাশ্রম কারাদন্ডাদেশ দিয়েছেন। শনিবার (০৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ আল আমিন এ দন্ডাদেশ প্রদান করেন।
আফরোজা এর আগেও বেশ কয়েকবার পুলিশের হাতে আটক হয় এবং জেল-জরিমানা ভোগ করেন। তিনি নড়াইল শহরের ভওয়াখালী এলাকায় ভাড়া থাকেন। তার গ্রামের বাড়ি লোহাগড়া উপজেলার দেবী গ্রামে।
ভ্রাম্যমান আদালত সূত্রে জানাগেছে, আফরোজা নামের ওই দালাল এক গরীব রোগীকে প্রতারণা করে হাসপাতালের বাইরের একটি বেসরকারী প্যাথলজিতে নিয়ে যায়। এসময় গোয়েন্দা পুলিশ ওই দালালকে আটক করে। পরে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে এক সপ্তাহের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করে।
নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ আল আমিন বলেন,‘নড়াইল সদর হাসপাতালে একটি দালালচক্র দীর্ঘদিন ধরে সহজ-সরল রোগীদের প্রতারণা করে বিভিন্ন প্যাথলজিতে নিয়ে পরীক্ষা-নির্ক্ষীার জন্য নিয়ে যায়। এতে গরীব রোগীদের অতিরিক্ত অর্থ গচ্ছা যায়। শনিবার দুপুরে আফরোজা নামে এক দালাল এক রোগীকে হাসপাতাল থেকে ভাগিয়ে একটি প্যাথলজিতে নেয়ার সময় আটক করা হয়। ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে এক সপ্তাহের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে।