নড়াইলে শহীদ সুব্রত সাহা মানিকের ২৮তম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত

51

নড়াইল কণ্ঠ : “মানিক আমার চেতনা,মানিক আমার বিশ্বাস “জয়বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু এই অনুপ্রেরণাকে সামনে রেখে নড়াইলে নানা কর্মসূচির মধ্যদিয়ে শহীদ সুব্রত সাহা মানিকের ২৮তম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত হয়েছে। কর্মসূচির মধ্য ছিল শহীদের স্মৃতিস্তভে পুষ্পমাল্য অর্পণ, শোকর‌্যালি ও আলোচনা সভা।
শুক্রবার (৩০ নভেম্বর) ’৯০ এর গণআন্দোলনের সহযোদ্ধাবৃন্দ ও শহীদ মানিক-চয়ন স্মৃতি সংসদ এর আয়োজনে সকাল ১০টায় নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজ চত্বরে শহীদের স্মৃতিস্তভে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়।
এরপর বিকাল সাড়ে ৪টায় নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজের সুলতান মঞ্চ থেকে এক শোকর‌্যালি বের হয়। র‌্যালিটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পুরাতন বাসটার্মিনালে গিয়ে শেষ হয়।

আবু ফেরদৌস মিলনের সভাপতিত্বে বঙ্গবন্ধু মঞ্চে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে বক্তব্য রাখেন, সহযোদ্ধা লোহাগড়া পৌর মেয়র আমরাফুল আলম, জাতীয় মহিলা সংস্থা নড়াইল জেলা শাখার চেয়ারম্যান সালমা রহমান কবিতা,অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক আনজুমান আরা, অ্যাডভোকেট রওশন আরা লিলি, শহীদ সুব্রত সাহা মানিকের ২৮তম মৃত্যুবার্ষিকী উদযাপন কমিটির সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট কাজী বশিরুল হক, সহযোদ্ধা বন্ধু মাহমুদুল হাসান কয়েস, কাজী গোরাম মোস্তাফা স্বপন, স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি তারিকুল ইসলাম উজ্জ্বল, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নিলয় রায় বাধন প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, শহীদ সুব্রত সাহা মানিক ও চয়ন মল্লিক হত্যা মামলার রায় তথকালিন ক্ষমতাশীল বিএনপি-জামাত সরকার অন্যায়ভাবে আসামীদের বেকসুর খালাস দিয়েছে। আমরা এ মামলা দু’টি পুন:রায় আদালতে রজ্জু করতে চাই। বক্তারা আরো বলেন, শহীদ সুব্রত সাহা মানিক ও চয়ন মল্লিক হত্যা মামলার কাউন্টার মামলার সব আসামীদের বিভিন্ন মেয়াদের শাস্তি দেয়া হলো অথচ সহযোদ্ধা শহীদ মানিক ও চয়ন হত্যা মামলার ন্যায় বিচার দেয় নাই তথকালিন ক্ষমতাশীল বিএনপি-জামাত সরকার। এসব কথা সকলে স্মরণে রেখে আগামি নির্বাচনে সকলের সজাগ থাকতে হবে।
উল্লেখ্য, ১৯৯০ গণআন্দোলনে জামাত-শিবিরা নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজ চত্বরে ২৫ নভেম্বর অতর্কিতভাবে শহীদ সুব্রত সাহা মানিককে মারাত্বকভাবে খুপিয়ে রক্তা জখম করে। তাঁকে রক্তশুণ্য অবস্থায় ঢাকায় নেয়া হয়। ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৬টা দিন মৃত্যুর সাথে লড়াই করে, পরে ৩০ নভেম্বর মারা যায়।
এই শহীদ মানিক হত্যা মামলার সাথে জড়িত জামাত ছাত্রশিবির নেতা রবিউল, আনোয়ার, মাসুদ, রহমান, আউয়ুবসহ সকল আসামীদের তথকালিন ক্ষমতাশীল বিএনপি-জামাত সরকার আদালত থেকে বেকসুর খালাস দেয়। অথচ ঐ মামলার কাউন্টার মামলার সব আসামীদের বিভিন্ন মেয়াদের শাস্তি দেয় তথকালিন ক্ষমতাশীল বিএনপি-জামাত সরকার।