ঝিনাইদহে ব্যবসায়ী হত্যা মামলায় ২জনের যাবজ্জীবন

28

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি : ঝিনাইদহের শৈলকুপায় ব্যবসায়ী হাজী আব্দুল লতিফ হত্যা মামলায় দুইজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করেছেন আদালত। রোববার দুপুরে ঝিনাইদহের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ প্রথম আদালতের বিচারক গোলাম আযম এ রায় প্রদান করেন। দন্ডপ্রাপ্তরা হলো- শৈলকুপা উপজেলার মুস্তাকুর রহমান ওরফে ব্যানেট ও কামান্না গ্রামের শামু আমমেদ।
মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১০ সালের ৬ এপ্রিল শৈলকুপার আহসাননগর গ্রামের সার ব্যবসায়ী হাজী আব্দুল লতিফ মোটরসাইকেলযোগে পাওনাদারদের কাছে টাকা আদায় করতে শৈলকুপার কবিরপুর অগ্রণী ব্যাংকের সামনে পৌঁছালে আসামীরা তাকে অপহরণ করে বগুড়া গ্রামে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে গলায় ফাঁস দিয়ে হত্যা করে একটি মেহগনি বাগানে মাটিচাপা দিয়ে রাখে। পরদিন নিহতের ছেলে মামুনুর রশিদ শৈলকুপা থানায় অজ্ঞাতদের আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।
মামলা দায়েরের পর পুলিশ ব্যানেটকে আটক করে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী নিহতের লাশ উদ্ধার করা হয়। তদন্ত শেষে পুলিশ পরের বছর ২০১১ সালের ১১ মে চারজনকে আসামী করে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করে।
দীর্ঘ শুনানী ও স্বাক্ষ্যগ্রহন শেষে রোববার দুপুরে আদালত দুইজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড প্রদান করেন। মামলার প্রধান আসামী বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়। এছাড়াও অপর আরেক আসামী রাকুকে পাঁচবছরের কারাদন্ড প্রদাণ করা হয়েছে।